মহেন্দ্র সিং ধোনী ভারতীয় ক্রিকেটার। মহেন্দ্র সিং ধোনীর অধিনায়কত্বে ভারত ২০০৭ আইসিসি বিশ্ব টোয়েন্টি ২০০৭-০৮ সালের সিবি সিরিজ, ২০০৮ সালের বর্ডার-গাভাস্কার ট্রফি, ২০১০ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ২-০ ব্যবধানে একটি সিরিজ ও ২০১১ ক্রিকেট বিশ্বকাপ জয় করেছে। তাঁর অধিনায়কত্বেই ভারত টেস্টের র‌্যাঙ্কিংয়ে এক নম্বরে উঠে এসেছিল। এখনও পর্যন্ত টেস্ট এবং একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তাঁর রেকর্ড ভারতীয় অধিনায়কদের মধ্যে সেরা। ভারতের কিছু কিছু অঞ্চলে যেমন চরম দারিদ্র আছে। তেমনি দেশটিতে মুকেশ আম্বানিদের মতো বিলিয়নিয়ারদের অভাব নেই। তাদের এবার ছাড়িয়ে গেলেন সাবেক ভারত অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। দেশের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত করতে সামরিক বাহিনীর ট্রেনিংয়ে ধোনি এখন এই মুহূর্তে জম্মু ও কাশ্মীরে রয়েছেন। এমন সময়েই ধোনির রাঁচির বাড়ির গ্যারেজে চলে এসেছে একটি দুর্দান্ত গাড়ি। যা ভারতে একটিই আছে।
ধোনির স্ত্রী সাক্ষী ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করে এই গাড়ির খবর দিয়েছেন।ভারতের টেরিটোরিয়াল আর্মির প্যারাশুট রেজিমেন্টের লেফটেন্যান্ট (সাম্মানিক) কর্নেল মহেন্দ্র সিং ধোনী। ভারতে ধোনিই এই গাড়ির প্রথম মালিক বলে জানিয়েছেন ধোনির স্ত্রী সাক্ষীই। এখন প্রশ্ন ধোনির বাড়িতে কোন কম্পানির আর কোন মডেলের গাড়ি এসেছে? বিখ্যাত মার্কিনি অটোমোবাইল সংস্থা ফিয়াট ক্রিসলার অটোমোবাইলস। তাদের জিপ ব্র্যান্ডের গাড়ি বিশ্ববিখ্যাত। এই ব্র্যান্ডের মাঝারি সাইজের এসইউভি জিপ গ্র্যান্ড শেরোকি ট্র্যাকহক ৬.২ শোভা বাড়াচ্ছে ধোনির গ্যারেজে। জানা গেছে, বাংলাদেশি মুদ্রায় এসইউভি জিপ গ্র্যান্ড শেরোকি ট্র্যাকহকের দাম ৭১ লক্ষ ৩০ হাজার টাকা। গাড়ি-বাইকের প্রতি ধোনি বরাবরই আকর্ষণ অনুভব করেন। ফেরারি ৫৯৯ জিটিও থেকে হামার এইচটু, জিএমসি সিয়েরার মতো গাড়ি রয়েছে তাঁর সংগ্রহশালায়। অন্য়দিকে বাইকের মধ্য়ে ধোনির রয়েছে কাওয়াসাকি নিনজা এইচটু, কনফেডারেট হেলক্য়াট, বিএসএ, সুজুকি হায়াবুসা ও নর্টন ভিনটেজের মতো বাইক। স্বামীর অপেক্ষায় দিন কাটছে সাক্ষীর, এখন নতুন গাড়ির আনন্দ ভাগাভাগি করতে।