মানববন্ধন থেকে আটকের পর তিন দিনের রিমান্ড শেষে কারাগারে মারা গেছেন ঢাকা মহানগর উত্তরের সহসভাপতি ও তেজগাঁও থানা ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জাকির হোসেন মিলন। সোমবার সকালে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে অসুস্থ হয়ে পড়লে মাসুদ নামে এক কারারক্ষী ছাত্রদল নেতাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসেন। সকাল পৌনে ৯টার দিকে চিকিৎসকরা জাকিরকে মৃত ঘোষণা করেন।
এদিকে তার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করছেন বিএনপির নেতাকর্মীরা। মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিযোগ করে বলেন, ’পুলিশি নির্যাতনে গুরুতর আহতাবস্থায় চিকিৎসার অভাবে ছাত্রদল নেতা জাকির হোসেন মিলন অকালে মারা যান।’

অন্যদিকে ছাত্রদল নেতা জাকিরকে খুন নিয়ে নিজের ফেসবুক পেজ-এ একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক ও এক সময়ের নামী সাংবাদিক ড. আসিফ নজরুল।

তিনি লিখেছেন, আদালত রিমান্ডে দিল। পুলিশের কাছে তিন দিনের রিমান্ডের পর কারাগারে পাঠানো হলো। সেখানে দুদিন পর তরতাজা একটা ছেলে ছাত্রদল নেতা জাকির মারা গেল। এই বর্বরতার বিচার হবে না কোনো? হেফাজতে মৃত্যুর শাস্তি নাকি যাবজ্জীবন কারদন্ড। শাস্তি দুরের কথা, কাউকে কি গ্রেফতার হতে দেখবো না আমরা জাকিরের খুনের জন্য?আস

News Page Below Ad