রবীনা ট্যান্ডন একজন ভারতীয় অভিনেত্রী, প্রযোজক, এবং প্রাক্তন মডেল। তিনি প্রাথমিকভাবে বলিউড চলচ্চিত্রে কাজ করেছেন, যদিও তিনি কয়েকটি তেলুগু, তামিল, কন্নড় ও বাংলা চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেন।
রবীনা ট্যান্ডন তার অভিনয় জীবন শুরু করেন পাত্থর কে ফুল (১৯৯১) দিয়ে, এবং এই অভিনয়ের জন্য ফিল্মফেয়ার পুরস্কার অর্জন করেন। ১৯৯০-এর দশকে তিনি বেশ কয়েকটি বাণিজ্যিক ভাবে সফল চলচিত্রে অভিনয় করেন। এছাড়া রবিনা ট্যান্ডন, নব্বইয়ের দশকে যার রূপে, গ্ল্যামারে এবং অভিনয়ে মেতে উঠেছিল ভারতবাসী। সেই অভিনেত্রী রবিনা ট্যান্ডন নানী হতে চলেছেন। রবিনা ট্যান্ডনের মেয়ে ছায়া প্রথম সন্তানের জন্ম দিতে চলেছেন। গত কয়েকদিন আগে এই অভিনেত্রী তার মেয়ে ছায়ার সাধ ভক্ষণের অনুষ্ঠানের ছবি পোস্ট করেন।

কী রবিনা ট্যান্ডনের নানী হওয়ার খবর শুনে অবাক হলেন নিশ্চয়ই?

তবে এখবরটা একেবারেই সত্যি। ২০১৬ সালে গোয়ায় হিন্দু ও ক্যাথলিক রীতিতে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন রবিনা ট্যান্ডনের মেয়ে ছায়া। এবার রবিনার সেই মেয়েই মা হতে চলেছেন। তবে এই প্রথমবার নয়, এর আগেই অবশ্য রবিনা নানী হওয়ার স্বাদ পেয়ে গিয়েছেন। ২০১১ সালে বিয়ে হয়েছিল রবিনার বড় মেয়ে পূজা। পরবর্তীকালে পূজা এক পুত্র সন্তানের জন্ম দেন, নাম রাখেন জ্যাডন। পূজা অবশ্য বিয়ের পর আপাতত সাউথ আফ্রিকাতেই থাকেন।

ভারতের জিনিউজ পত্রিকার খবরে বলা হয়, রবিনার মেয়ে ছায়ার সাধ ভক্ষণের অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছিল রবিনার মেয়ে রাশা। সাধের অনুষ্ঠানের ছবি শেয়ার করেছেন রবিনার বড় মেয়ে পূজা।

তবে অনেকেই সঠিক ভাবে জানেন না যে, অভিনেত্রী রবিনা ট্যান্ডন তার বিয়ের আগে ১৯৯৫ সালে পূজা ও ছায়াকে দত্তক নিয়েছিলেন। সেসময় ছায়ার বয়স মাত্র ৪ বছর আর পূজার বয়স ছিল ১১ বছর। এরপর ফিল্ম ডিস্ট্রিবিউটর অনিল থাডানির সাথে ২০০৪ সালে সাত পাকে বাঁধা পড়েন রবিনা ট্যান্ডন। তার এই ঘরে দুই সন্তান রয়েছেন। তারা হলেন, মেয়ে রাশা ও ছেলে রণবীর। বর্তমানে তার মেয়ের বয়স ১৪ বছর ও ছেলের বয়স ১২ বছর।